মোহাম্মদ ইদ্রিছ: আত্মমর্যাদা ও আত্মবিশ্বাসের প্রতীক স্বপ্নের পদ্মা সেতুর শুভ উদ্বোধন উপলক্ষে বঙ্গবন্ধু কন্যা প্রধানমন্ত্রী জননেত্রী শেখ হাসিনা কে ধন্যবাদ জানিয়ে দক্ষিণ রাঙ্গুনিয়া পদুয়া ইউনিয়ন আ.লীগ আনন্দ র‌্যালী করেছে ইউনিয়ন ও ওয়ার্ড আওয়ামীলীগসহ সহযোগি সংগঠনের নেতাকর্মীরা।

শনিবার (২৫জুন) সকাল সাড়ে ১১টায় পদুয়া ইউনিয়ন আ.লীগের ভারপ্রাপ্ত সভাপতি উপাধ্যক্ষ (অব:) দুলাল কান্তি দাশের সভাপতিত্বে সংক্ষিপ্ত সমাবেশে প্রধান অতিথির বক্তব্য দেন সুখবিলাস ফিশারীজ এন্ড প্ল্যান্টেশনের এর চেয়ারম্যান,জাতীয় মৎস্য পুরস্কার প্রাপ্ত মৎস্য খামারী ও পরিবর্তনের নায়ক এরশাদ মাহমুদ।

ইউনিয়ন আ.লীগের সাধারণ সম্পাদক বদিউজ্জমান বদির সঞ্চালনায় বিশেষ অতিথির বক্তব্য দেন, চট্টগ্রাম উত্তরজেলা আ.লীগের সদস্য ও সাবেক ছাত্র নেতা বেদারুল আলম চৌধুরী (বেদার), উপজেলা আ.লীগের সহ-সভাপতি ও পদুয়া ইউনিয়ন পরিষদের চেয়াম্যান বীর মুক্তিযোদ্ধা আবু জাফর ও পদুয়া ইউনিয়ন পরিষদের প্যানেল চেয়ারম্যান জাহিদ হাছান তালুকদার প্রমুখ।

র‌্যালিতে বাদ্যের তালে তালে উৎসবে মেতে উঠেন অংশ নেওয়া ইউনিয়নের  বিভিন্ন স্তরের জনপ্রতিনিধি, আওয়ামীলীগ, যুবলীগ, ছাত্রলীগ, ধর্মীয় ও পেশাজীবি নেতৃবৃন্দ।

র‍্যালি শেষে সংক্ষিপ্ত বক্তব্যে এরশাদ মাহমুদ বলেন, প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার বলিষ্ঠ নেতৃত্বে এবং একাগ্রতার কারণেই আজ পদ্মা সেতু নির্মিত হয়েছে। আজ পদ্মা সেতুর ঐতিহাসিক উদ্বোধন।

সেই আনন্দের অংশীদার এবং গৌরবের অংশ হিসেবে পদুয়া ইউনিয়ন আ.লীগ ও সহযোগী সংগঠনসহ সর্বস্তরের জনসাধারণ এ র‍্যালিতে অংশ নিয়েছে। জাতির যে আনন্দ সে আনন্দের সঙ্গে সম্পৃক্ত হয়ে আমরা পদুয়া তথা রাঙ্গুনিয়াবাসী এ আনন্দ র‍্যালিতে আমরা স্বতঃস্ফূর্তভাবে অংশ নিয়েছি। আমরা গর্বিত অনুভব করছি। প্রধানমন্ত্রীকে আমাদের পক্ষ থেকে কৃতজ্ঞতা এবং আন্তরিক ধন্যবাদ জানাচ্ছি।

এ সময়  বেদারুল আলম চৌধুরী (বেদার) বলেন, আমরা আনন্দিত, আমরা উদ্বেলিত, আমরা রাঙ্গুনিয়াবাসী, আমরা আনন্দ উদ্‌যাপন করেছি। আমরাও আজ পদ্মা সেতুর উদ্বোধন অনুষ্ঠান ভার্চুয়ালি দেখেছি। পদ্মা সেতুর উদ্বোধন এবং বাস্তবায়নে প্রধানমন্ত্রীর অনস্বীকার্য ভূমিকার প্রশংসা করে আন্তরিক ধন্যবাদ জানান তিনি।