(নিজস্ব প্রতিবেদক) রাঙ্গুনিয়া উপজেলা সরফভাটায় অজ্ঞাত দুই পাহাড়ি তরুনী হতে বিপুল পরিমাণ চোলাই মদ উদ্ধার করেছে এলাকাবাসী।

গত সোমবার (২৭জুন) আনুমানিক সকাল সাড়ে পাঁচটায় উপজেলার সরফভাটা ইউনিয়নে ৮নং ওয়ার্ডে নতুন পাড়া হতে দুই পাহাড়ী তরুনী থেকে ২৫ ব্যাগ ৩০ লিটার চোলাই মদ উদ্ধার করেছে এলাকাবাসী।

সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যম ফেসবুকে অত্র ওয়ার্ডের বর্তমান ইউপি সদস্য সাইফুদ্দিন আজম ( facebook I’d: Saifuddin Azam) পোস্ট থেকে জানা যায় “আজ ২৫ ব্যাগ ৩০ লিটার চোলাই মদ উদ্ধার করলাম” শিরোনামে ছবিসহ পোস্ট করেছেন।

পোস্ট দেখে ইউপি সদস্য সাইফুদ্দিন আজমের সাথে মুঠোফোনে যোগাযোগ করলে ফেসবুকে পোস্টে ঘটনার কথা স্বীকার করে তিনি জানান আনুমানিক সকাল পাঁচটায় ৮ নং ওয়ার্ডে মাদ্রাসা মার্কেট এলাকা থেকে দুটি পাহাড়ি মেয়ে সহ ২৫ ব্যাগ ৩০ লিটার চোলাই মদ উদ্ধার করলেও মেয়ে দুজন পালিয়ে যায়।

তিনি আরো বলেন, পুলিশের সাথে যোগাযোগ করে চোলাই মদ গুলো পাঠিয়ে দেওয়া হয়েছে। এর কিছুক্ষণ পর কোনো এক অজ্ঞাত কারণে তিনি সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যম ফেসবুক থেকে উক্ত পোস্টটি ডিলিট করে দেন।

এদিকে, চোলাই মদসহ আটক হওয়া দুই পাহাড়ি মেয়েকে যে এলাকা থেকে আটক করা হয়েছে ওই এলাকার বাসিন্দা মোঃ মুজিব (৪৫) বলেন, সকাল আনুমানিক পাঁচটার দিকে আমি মসজিদ থেকে বাড়িতে আসলে বাড়ির আঙিনার পাশে সবজি ক্ষেতে সন্দেহজনকভাবে দুটি পাহাড়ে তরুণী ঘোরাফেরা করতে দেখলে তাদেরকে জিজ্ঞাসাবাদ করি। জিজ্ঞাসাবাদের এক পর্যায়ে তারা বলেন চট্টগ্রামে একটি বিবাহ অনুষ্ঠানে যাব বলে জানান। সন্দেহ আরো গভীর হলে এলাকার কয়জনকে ডেকে তাদের তল্লাশি করলে ২৫ ব্যাগ ৩০ লিটার চোলাই মদ উদ্ধার করি। পরে ৮ নং ওয়ার্ডের  ইউপি সদস্য সাইফুদ্দিন আজমকে ফোন করলে ‍তিনি চৌকিদার আবুল কালামকে ফোন পাঠান, চৌকিদার আবুল কালাম মেয়ে দুটি ও মদসহ ইউপি সদস্য সাইফুদ্দিন আজমের কাছে নিয়ে যান।

এই প্রতিবেদক চৌকিদার আবুল কালামকে ঘটনার সত্যতা যাচাইয়ের উদ্দেশ্যে ফোন করলে মুঠোফোনে তিনি জানান, আমি শুধু ১৬ লিটার মদ পেয়েছি কোন মেয়ে পাইনি।

প্রতিবেদক, প্রমাণ আছে’ সত্যি শিকার করতে বললে আবুল কালাম জানান, ১৬ লিটার চোলাই মদ ও দুইজন তরুণীকে সহ মেম্বারের কাছে নিয়ে যায়।

অন্যদিকে, উক্ত ঘটনা সম্পর্কে জানতে সরফভাটা ইউপি চেয়ারম্যান শেখ ফরিদ উদ্দিন চৌধুরীর কাছে জানতে চাইলে  মুঠোফোনে তিনি জানান, আমাকে উক্ত বিষয়ে জানালে আমি চৌকিদার আবুল কালামকে থানার সাথে যোগাযোগ করে প্রয়োজনীয় ব্যাবস্থা নিতে বলেছি।

ঘটনার দুই পক্ষের কথার সাথে গরমিল থাকায় দক্ষিণ রাঙ্গুনিয়া থানার ভারপ্রাপ্ত ওসি ওবায়দুল ইসলাম এর সাথে যোগাযোগ করলে তিনি জানান, আমাকে কেউ অবহিত করেনি তবে আমি তদন্ত করে কিছুক্ষণের মধ্যে জানাচ্ছি। কিছুক্ষণ পর তিনি জানান সরফভাটা ইউনিয়নের ৮নং ওয়ার্ড হতে ২৫ ব্যাগ ৩০ লিটার চোলাই মদ উদ্ধার করেছে উক্ত ওয়ার্ডের ইউপি সদস্য সাইফুদ্দিন আজম এবং তিনি থানাকে জানান চোলাই মদ বহনকারী পালিয়েছে।