রাঙ্গুনিয়ায় ট্রাকের সাথে ব্যাটারিচালিত অটোরিকশার মুখোমুখি সংঘর্ষে এক অটোরিকশা চালকের মৃত্যু হয়েছে। আহত হয়েছে অটোরিকশায় থাকা আরো এক যাত্রী।


রোববার (৩ জুলাই) সাড়ে ১২টার দিকে কাপ্তাই সড়কের চন্দ্রঘোনা বুইজ্জার দোকান এলাকায় এই ঘটনা ঘটে।
এতে ঘটনাস্থলেই রিকশাচালক মারা যান এবং আহত হন রিকশায় থাকা এক যাত্রী। পুলিশ লাশ উদ্ধার করেছে।
নিহতের নাম মো. জমির (৪০)। সে চন্দ্রঘোনা-কদমতলী ইউনিয়নের ২নং ওয়ার্ড বুইজ্জার দোকান সিকদারপাড়া এলাকার এখলাস মিয়ার পুত্র।
পুলিশ সুত্রে জানা যায়, ট্রাকের সাথে ব্যাটারিচালিত অটোরিকশার মুখোমুখি সংঘর্ষ হলে রিকশাচালক ছিটকে পড়ে যায়। পড়ে ট্রাকের পেছনের চাকায় পিষ্ট হয়ে ঘটনাস্থলেই মারা যায় জমির।
চন্দ্রঘোনা-কদমতলী ইউপি চেয়ারম্যান ইদ্রিচ আজগর জানান, একটি খালি ট্রাক বেপরোয়া গতিতে পশ্চিম দিক থেকে চন্দ্রঘোনার দিকে যাচ্ছিল। বুইজ্জার দোকান এলাকায় এলে অন্য একটি গাড়িকে ওভারটেক করতে গিয়ে বিপরীত দিক থেকে আসা ব্যাটারিচালিত অটোরিকশাকে চাপা দেয় ট্রাকটি।
এই ঘটনায় মো. হৃদয় (৩৫) নামে অটোরিকশার এক যাত্রীও আহত হয়েছেন। তাকে স্থানীয় একটি হাসপাতালে নিয়ে চিকিৎসা দেয়া হলে আপাতত সে আশংকামুক্ত বলে জানা যায়।
জানা যায়,ট্রাকটি জব্দ করা হয়ছে। লাশটি উদ্ধার করে ময়নাতদন্তের জন্য মর্গে প্রেরণ করা হচ্ছে। এই ঘটনায় সড়ক দুর্ঘটনা আইনে মামলা নেয়া হবে।
এদিকে সড়ক দুর্ঘটনায় রিকশা চালক জমিরের মৃত্যুর ঘটনায় এলাকাজুড়ে শোকের ছায়া নেমে এসেছে। তার স্ত্রী তিন মেয়ে ও ৮ মাস বয়সী এক ছেলে সন্তান রয়েছে।