দক্ষিণ এশিয়ার অন্যতম দ্বীনি বিদ্যাপীঠ আল-জামিয়া আল-ইসলামিয়া পটিয়ার পৃষ্ঠপোষক হলেন জামিয়া দারুল মা’আরিফের পরিচালক আল্লামা সুলতান যওক নদভী।

আজ বৃহস্পতিবার (৭জুলাই) জামিয়া পটিয়ার শুরা বৈঠকে এ সিদ্ধান্ত গ্রহন করা হয়েছে। এছাড়া সদরে মুহতামিম হিসেবে নির্বাচিত হয়েছেন আল্লামা আমিনুল হক, মুহতামিম মাওলানা ওবায়দুল্লাহ হামযাহ। নায়েবে মুহতামিম মাওলানা আবু তাহের নদভী।

জামিয়া পটিয়ার অফিসিয়াল পেইজের সূত্রে জানা যায়, আল্লামা মুহাম্মদ সুলতান যওক নদভীর সভাপতিত্বে আজকের শুরা অধিবেশেনে উপস্থিত ছিলেন, আল্লামা হাফেজ আহমদুল্লাহ, আল্লামা আমীনুল হক, আল্লামা আবু তাহের নদবী, আল্লামা জসীমুদ্দিন কাসেমি, আল্লামা ফোরকানুল্লাহ খলীল, আল্লামা আব্দুল হক হক্কানী, আল্লামা মুফতি আব্দুল কাদের, আল্লামা এমদাদুল্লাহ নানুপুরী, আল্লামা মুসলিম কক্সবাজার, আল্লামা মুফতি কেফায়তুল্লাহ শফীক, আল্লামা দলীলুর রহমান, আল্লামা আফজলুর রহমান শর্শদী, আল্লামা মাকসুদুর রহমান, মুফতি হাসান মুরাদাবাদি, মাওলানা আমানুল্লাহ। এছাড়াও সৌজন্য অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন- চট্টগ্রাম ১২ আসনের সাংসদ ও মাননীয় সংসদ হুইপ সামশুল হক (এমপি) প্রমুখ।

উপস্থিত সদস্যরা বলেন, যেমনি এই প্রতিষ্ঠানটি আল্লাহর কাছে মাকবূল ও গ্রহণযোগ্য, তেমনি এর রয়েছে আন্তর্জাতিকভাবে সুনাম ও সুখ্যাতি। এই প্রতিষ্ঠানের উন্নতি-অগ্রগতি এবং একে এগিয়ে নেয়ার জন্য আন্তর্জাতিকমানের একজন যোগ্য মুহতামিমের প্রয়োজন। সেই বিবেচনায় আমাদের মরহুম মুহতামিম আল্লামা আব্দুল হালীম বোখারী রহ. আল্লামা ওবায়দুল্লাহ হামযাহ-কে নায়েবে মুহতামিম নিযুক্ত করে যান এবং তাঁর মাধ্যমে দীর্ঘ দুই বছর যাবত জামিয়ার আভ্যন্তরীণ ও বাহ্যিক বিষয়াদির আঞ্জাম দিয়ে যান।

অতএব, আল্লামা ওবায়দুল্লাহ হামযা-কে মুহতামিম হিসেবে দায়িত্ব পালন করবেন। আশা করি, তিনি জামিয়া পটিয়ার গৌরবোজ্জ্বল অতীত সংরক্ষণের পাশাপাশি বর্তমানকে সমৃদ্ধ ও ভবিষ্যৎকে বর্ণিল করার প্রানান্তকর প্রচেষ্টা চালিয়ে যাবেন। তাঁর নিষ্ঠাপূর্ণ সুষ্ঠু পরিচালনায় জামিয়া পটিয়ায় বহুমূখী উন্নয়ন-উন্নতির ধারা অব্যাহত থাকবে। পরিশেষে সভাপতির দুআর মাধ্যমে শোরা অধিবেশন সমাপ্ত হয়।

এর আগে ২১ জুন (মঙ্গলবার) পটিয়া মাদরাসার মহাপরিচালক, আল্লামা শাহ মুফতি আব্দুল হালীম বোখারী ইন্তেকাল করেছেন। পরে মাওলানা ওবায়দুল্লাহ হামযাহকে জামিয়া পটিয়ার ভারপ্রাপ্ত মুহতামিম নিযুক্ত করা হয়।

২৫ জুন (শনিবার) জামিয়ার মজলিসে ইলমি শাইখুল হাদীস মনোনীত করেন আল্লামা মুফতি হাফেজ আহমাদুল্লাহ। জামিয়ার শাইখে সানী আল্লামা মুফতি শামছুদ্দীন জিয়া।